ঢাকা ০৩:০৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১৭ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বীরমুক্তিযোদ্ধার ছবি ভাঙচুরের ঘটনায়

আদিতমারীতে আ.লীগের সংবাদ সম্মেলন।

লালমনিরহাট আদিতমারী উপজেলা আওয়ামীলীগেরর একাংশের তৃনমূল ব্যানের উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বীরমুক্তিযোদ্ধা শামসুল ইসলাম সুরুজের ছবি ভাঙচুর করার ঘটনায় উপজেলা আওয়ামী লীগের তৃণমূলের নেতা কর্মীরা তীব্র নিন্দা জানিয়ে রবিবার (২৭ নভেম্বর) বিকালে ৫টায় দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করে। লিখিত বক্তব্য উপজেলা তৃনমুল আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ও কমলাবাড়ী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাহমুদ ওমর চিশতি বলেন, শনিবার (২৬ নভেম্বর) উপজেলার আওয়ামী লীগের তৃণমূল নেতা কর্মীরা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা ও সমাবেশ ছিল। এ সময় উপজেলার সদ্য ঘোষিত বিএনপি’সাবেক সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী ও প্রয়াত বিএনপি নেতার পুত্র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সমম্পাদক রফিকুলের নেতৃত্বে আওয়ামীলীগে যোগদানককৃত বিএনপির জামাতে সশস্ত্র ক্যাডারা দলীয় কার্যালয় হামলা ও ভাংচুর করে। এসময় দলীয় কার্যালয়ে রক্ষিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ২০০৩ সালে ২২ ডিসেম্বর বিএনপি জামাতের নির্মম পৈশাচিক বর্বর হত্যাকাণ্ডের শিকার বীরমুক্তিযোদ্ধা শামসুল ইসলাম সুরুজের (জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক) ছবি ভাঙচুর করা হয়। এ সময় সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেয়। সংবাদ সন্মেলনের সভাপতি উপজেলা আওয়ামীলীগের (একাংশের) তৃনমূলেরর সভাপতি ও ভাদাই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায় বিদুর বলেন, চেয়ারম্যান নৌকা প্রতীক নিয়ে বিজয়ী হয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের কমিটিতে সদস্য হতে পারলাম না। যার ফলে তৃণমূল নেতা কর্মীরা ত্যাগী ও প্রকৃত কর্মীদের নিয়ে পৃথক কমিটি ঘোষনা দিয়েছে। তিনি মন্ত্রী, এমপি, মন্ত্রী পুত্র ও এপিএসের লাগাম টেনে ধরে তদন্তপূর্বক কমিটি ঘোষনায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন। উল্লেখ্য,গত ৮অক্টোবর দীর্ঘ ১২ বছর পরে উপজেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। আওয়ামীলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক মন্ত্রী শাহাজান খান ও সাংগঠনিক সম্পাদক সাখওয়াত খান শফিকসহ কেন্দ্রীয় নেতারা উপস্থিত থেকেও দুইটি গ্রুপের অন্তদ্বন্দ্বের কারনে কমিটি ঘোষনা ছাড়াই সম্মেলন স্থগিত ঘোষনা করেন। উপজেলা আওয়ামীলীগের দুইটি গ্রুপের অন্তদ্বন্দ্ব দীর্ঘ দিনের। গ্রুপ দুইটির একটিতে নেতৃত্ব দিচ্ছেন সসাজকল্যান মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ এমপি ও অপর গ্রুপে নেতৃত্ব দিচ্ছেন ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সাবেক পরিচালক জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সিরাজুল হক। সম্মেলন স্থগিত হলেও গত ১৯ নভেম্বর দুপুরে তিস্তা ব্যারাজের অবসর রেষ্ট হাউসে জেলা আওয়ামী লীগের সভায় সিরাজুল হক গ্রুপকে সমুলে বঞ্চিত করে সাবেক উপজেলা বিএনপি’র সভাপতি মোহাম্মদ আলীকে সভাপতি ও সাবেক সম্পাদক রফিকুল আলমকে সম্পাদক করে ৭১ সদস্যের উপজেলা আওয়ামীলীগের কমিটি ঘোষনা করা হয়। একটি গ্রুপকে সমুলে বঞ্চিত করে কমিটি ঘোষনা দেয়ায় বঞ্চিত গ্রুপটি হাইব্রীড কমিটি বাতিলের দাবিতে দলীয় কার্যালয়ে বিক্ষোভ মিছিলসহ টানা কর্মসুচি পালন করে আসছে। এ দিকে নতুন কমিটি শনিবার (২৬ নভেম্বর) বিএনপি জামাতায়াতের নৈরাজ্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে। দুই গ্রুপের পাল্টাপাল্টি কর্মসুচির কারনে সংঘর্ষ হয়।

 

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy24

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।
জনপ্রিয় সংবাদ

Nagad-Fifa-WorldCup

ইতিহাসের এই দিনে: ৩১ জানুয়ারি-২০২৩

google.com, pub-9120502827902997, DIRECT, f08c47fec0942fa0

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বীরমুক্তিযোদ্ধার ছবি ভাঙচুরের ঘটনায়

আদিতমারীতে আ.লীগের সংবাদ সম্মেলন।

প্রকাশিত সময়: ০৮:০৭:০৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২২

লালমনিরহাট আদিতমারী উপজেলা আওয়ামীলীগেরর একাংশের তৃনমূল ব্যানের উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বীরমুক্তিযোদ্ধা শামসুল ইসলাম সুরুজের ছবি ভাঙচুর করার ঘটনায় উপজেলা আওয়ামী লীগের তৃণমূলের নেতা কর্মীরা তীব্র নিন্দা জানিয়ে রবিবার (২৭ নভেম্বর) বিকালে ৫টায় দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করে। লিখিত বক্তব্য উপজেলা তৃনমুল আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ও কমলাবাড়ী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাহমুদ ওমর চিশতি বলেন, শনিবার (২৬ নভেম্বর) উপজেলার আওয়ামী লীগের তৃণমূল নেতা কর্মীরা আওয়ামী লীগের আলোচনা সভা ও সমাবেশ ছিল। এ সময় উপজেলার সদ্য ঘোষিত বিএনপি’সাবেক সভাপতি ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলী ও প্রয়াত বিএনপি নেতার পুত্র ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সমম্পাদক রফিকুলের নেতৃত্বে আওয়ামীলীগে যোগদানককৃত বিএনপির জামাতে সশস্ত্র ক্যাডারা দলীয় কার্যালয় হামলা ও ভাংচুর করে। এসময় দলীয় কার্যালয়ে রক্ষিত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ২০০৩ সালে ২২ ডিসেম্বর বিএনপি জামাতের নির্মম পৈশাচিক বর্বর হত্যাকাণ্ডের শিকার বীরমুক্তিযোদ্ধা শামসুল ইসলাম সুরুজের (জেলা আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক) ছবি ভাঙচুর করা হয়। এ সময় সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের দেখে নেওয়ার হুমকি দেয়। সংবাদ সন্মেলনের সভাপতি উপজেলা আওয়ামীলীগের (একাংশের) তৃনমূলেরর সভাপতি ও ভাদাই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কৃষ্ণ কান্ত রায় বিদুর বলেন, চেয়ারম্যান নৌকা প্রতীক নিয়ে বিজয়ী হয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের কমিটিতে সদস্য হতে পারলাম না। যার ফলে তৃণমূল নেতা কর্মীরা ত্যাগী ও প্রকৃত কর্মীদের নিয়ে পৃথক কমিটি ঘোষনা দিয়েছে। তিনি মন্ত্রী, এমপি, মন্ত্রী পুত্র ও এপিএসের লাগাম টেনে ধরে তদন্তপূর্বক কমিটি ঘোষনায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হস্তক্ষেপ কামনা করেন। উল্লেখ্য,গত ৮অক্টোবর দীর্ঘ ১২ বছর পরে উপজেলা আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। আওয়ামীলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য সাবেক মন্ত্রী শাহাজান খান ও সাংগঠনিক সম্পাদক সাখওয়াত খান শফিকসহ কেন্দ্রীয় নেতারা উপস্থিত থেকেও দুইটি গ্রুপের অন্তদ্বন্দ্বের কারনে কমিটি ঘোষনা ছাড়াই সম্মেলন স্থগিত ঘোষনা করেন। উপজেলা আওয়ামীলীগের দুইটি গ্রুপের অন্তদ্বন্দ্ব দীর্ঘ দিনের। গ্রুপ দুইটির একটিতে নেতৃত্ব দিচ্ছেন সসাজকল্যান মন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ এমপি ও অপর গ্রুপে নেতৃত্ব দিচ্ছেন ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের শীর্ষ সংগঠন এফবিসিসিআইয়ের সাবেক পরিচালক জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সিরাজুল হক। সম্মেলন স্থগিত হলেও গত ১৯ নভেম্বর দুপুরে তিস্তা ব্যারাজের অবসর রেষ্ট হাউসে জেলা আওয়ামী লীগের সভায় সিরাজুল হক গ্রুপকে সমুলে বঞ্চিত করে সাবেক উপজেলা বিএনপি’র সভাপতি মোহাম্মদ আলীকে সভাপতি ও সাবেক সম্পাদক রফিকুল আলমকে সম্পাদক করে ৭১ সদস্যের উপজেলা আওয়ামীলীগের কমিটি ঘোষনা করা হয়। একটি গ্রুপকে সমুলে বঞ্চিত করে কমিটি ঘোষনা দেয়ায় বঞ্চিত গ্রুপটি হাইব্রীড কমিটি বাতিলের দাবিতে দলীয় কার্যালয়ে বিক্ষোভ মিছিলসহ টানা কর্মসুচি পালন করে আসছে। এ দিকে নতুন কমিটি শনিবার (২৬ নভেম্বর) বিএনপি জামাতায়াতের নৈরাজ্যের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে। দুই গ্রুপের পাল্টাপাল্টি কর্মসুচির কারনে সংঘর্ষ হয়।