‘খালেদা জিয়ার অবস্থা খারাপ না’

বিজয় ডেস্ক: বেশ কয়েকটি শারীরিক সমস্যার কারণে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে নেওয়া হয়েছে।

সোমবার দুপুরে হাসপাতালে নেওয়া হয়। বিকেলে চিকিৎসকরা তাকে দেখেন।

পরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. এ কে মাহবুবুল হক সাংবাদিকদের বলেন, ‘তিনি (খালেদা জিয়া) হাঁটতে পারছেন না, ডায়াবেটিস একটু বেশি, ক্ষুধামন্দা রয়েছে, মানে খাবারের রুচি কম। এসব সমস্যা নিয়ে তাকে হাসপাতালে আনা হয়েছে। আনার পর মেডিক্যাল বোর্ড খালেদা জিয়াকে দেখে প্রেসক্রিপশন দিয়েছে যে- কী কী ওষুধ খেতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘খালেদা জিয়া এখানে থাকবেন। প্রতিদিন আমরা তার ফলোআপ করব, ওষুধ খাওয়ার পর তর স্বাস্থ্যের অবস্থা কী হয়, সেটা দেখে পরবর্তী ব্যবস্থা নেব। তার (খালেদা জিয়া) অবস্থা খুব খারাপ নয়। তিনি বোর্ডের সামনে বসে কথা বলেছেন, বোর্ডকে নিজেই স্বাস্থ্যের সমস্যার কথা জানিয়েছেন এবং ওষুধপত্র কীভাবে খাবেন বুঝে নিয়েছেন। মূলত বয়সের জন্য কিছু সমস্যা তার দেখা দিয়েছে।’

তবে কতদিন তাকে এখানে থাকতে হবে সে সম্পর্কে নিশ্চিত করে কিছু জানাতে পারেননি। তিনি বলেছেন, ‘স্বাস্থ্যের উন্নতির বিষয়টি দেখে বুঝতে পারবেন কতদিন থাকা লাগবে।’

খালেদা জিয়ার চিকিৎসায় করা পাঁচ সদস্যের মেডিক্যাল বোর্ডের প্রধান অধ্যাপক জিলান মিয়া সরকার বলেন, ‘আমরা গত কয়েকদিনে যেসব পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেছি, সেটার ভিত্তিতেই তাকে আজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে এবং চিকিৎসা শুরু করা হয়েছে। এসব ওষুধ খাওয়ার পর ফলোআপ করা হবে। দুই-তিন দিন পরে আবার আমরা তাকে দেখব।’

বিএনপির পক্ষ থেকে খালেদা জিয়াকে বিশেষায়িত হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসার দাবি জানানো হয়। তবে হাসপাতালের পরিচালক বলেছেন, ‘এ ব্যাপারে খালেদা জিয়া বোর্ডকে কিছু জানাননি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.