ঢাকা ০১:১৫ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গায়ের জোরে সরকারকে হটাতে হবে: ড. মোশাররফ

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, এ সরকার গায়ের জোরে টিকে আছে। তাই এ সরকারকে হটাতে হবে।

বৃহস্পতিবার ((২৬ মে) লালমনিরহাটে জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলায় শহীদ আবুল কাশেম মহাবিদ্যালয় মাঠে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশকে বিদেশে হাইব্রিড দেশ বানিয়েছে এই সরকার। গায়ের জোরে টিকে থাকা এ সরকারের হাত থেকে দেশকে রক্ষা করতে হবে। এই সরকারের অনতিবিলম্বে পদত্যাগ করতে হবে। সংসদ ভেঙ্গে দিয়ে নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে।

তিনি আরও বলেন, তারেক জিয়া আজ এই আয়োজনে উপস্থিত থাকলে আমরা খুশি হতাম। কিন্তু আজ আমরা ব্যথিত যে তাকে মিথ্যা মামলা দিয়ে দেশ থেকে বিতাড়িত করা হয়েছে। আমাদের দাবি অতিদ্রুত তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে এনে সুষ্ঠু রাজনীতি করতে দিতে হবে। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে নিঃশর্তভাবে মুক্তি দিতে হবে।

জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজক কমিটির সভাপতি জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক মন্ত্রী আসাদুল হাবিব দুলুর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন,ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপি’র আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সালাম।ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি’র সংগ্রামী সদস্য সচিব,জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজন কমিটি সদস্য সচিব ও জাতীয় ফুটবল দলের আমিনুল হক ও ঢাকা উত্তরের মেয়র প্রার্থী ও নির্বাহী কমিটির সদস্য ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন।

বিএনপির রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক মন্ত্রী আসাদুল হাবিব দুলু বলেন, আমাদের এই আয়োজনে কুচক্রী মহল বিভিন্নভাবে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে আসছে। যাতে আয়োজন সফল না হয় সেজন্য বিভিন্নভাবে হুমকি ধমকি দেওয়া হয়েছে। আমরা সকল বাধা প্রতিহত করে আজ এই আয়োজন করেছি। ঠিক এমনি ভাবে আমরা সকল ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে দেশনেত্রীকে মুক্ত করে ছাড়বো। দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত করবোই। আজকের খেলার মাধ্যমে বিএনপি’র একটি পুর্নমিলনী হয়েছে এবং নেতাকর্মিদেরকে উজ্জিবীত করতে এই মিলন মেলা তথা সরকারকে হটিয়ে নির্দলীয় তত্বাবোধক সরকার প্রতিষ্ঠাতা করে নির্বাচনে ক্ষমতায় আসতে এই উদ্দোগ।

এর আগে গত ১২ মে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। খেলায় রংপুর বিভাগের বিভিন্ন জেলার দল অংশ নেন। ফাইনালে স্বাগতিক লালমনিরহাট বিএনপি একাদশ ২ শূন্য গোলে রংপুর মহানগর বিএনপিকে পড়াজিত করে তৃতীয় বারের মত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌড়ব অর্জন করেন। খেলা শেষে সন্ধায় প্রধান অতিথি বিশেষ অতিথি বিজয়ী ও রানার্সআপ দলের মাঝে ট্রফি বিতরন করেন।

এদিকে ফাইনাল খেলা উপলক্ষে লালমনিরহাটের বড়বাড়ি শহীদ আবুল কাশেম মহাবিদ্যালয়ে জমকালো আয়োজনে সাজানো হয় পুরো কলেজ মাঠ। খেলার শুরুতে স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীদের মাদক, যৌতুক ও সন্ত্রাস বিরোধী শপথ পাঠ করানো হয়। পরে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের অংশগ্রহণে ডিসপ্লে প্রদর্শন করা হয়। পরে জাতীয় সংগীত ও দলীয় সংগীত পরিবেশন করে খেলার আনুষ্ঠানিক শুরু করা হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন,রংপুর জেলা বিএনপি’র আহবায়ক সাইফুল ইসলাম, রংপুর মহানগর বিএনপি’র আহবায়ক সামসুজ্জামান সামু, লালমনিরহাট জেলা বিএনপি’র সম্পাদক হাফিজুর রহমান বাবলা, সদর বিএনপি’র আহবায়ক একেএম মমিনুল হক, লালমনিরহাট-২ আসনের বিএনপির সংসদ প্রার্থী রোকনুজ্জামান বাবুল সহ রংপুর বিভাগের বিভিন্ন জেলার বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

নিউজবিজয়/এফএইচএ

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy24

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।
জনপ্রিয় সংবাদ
google.com, pub-9120502827902997, DIRECT, f08c47fec0942fa0

গায়ের জোরে সরকারকে হটাতে হবে: ড. মোশাররফ

প্রকাশিত সময়: ০৯:০৪:৫৯ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, এ সরকার গায়ের জোরে টিকে আছে। তাই এ সরকারকে হটাতে হবে।

বৃহস্পতিবার ((২৬ মে) লালমনিরহাটে জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলায় শহীদ আবুল কাশেম মহাবিদ্যালয় মাঠে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বাংলাদেশকে বিদেশে হাইব্রিড দেশ বানিয়েছে এই সরকার। গায়ের জোরে টিকে থাকা এ সরকারের হাত থেকে দেশকে রক্ষা করতে হবে। এই সরকারের অনতিবিলম্বে পদত্যাগ করতে হবে। সংসদ ভেঙ্গে দিয়ে নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে।

তিনি আরও বলেন, তারেক জিয়া আজ এই আয়োজনে উপস্থিত থাকলে আমরা খুশি হতাম। কিন্তু আজ আমরা ব্যথিত যে তাকে মিথ্যা মামলা দিয়ে দেশ থেকে বিতাড়িত করা হয়েছে। আমাদের দাবি অতিদ্রুত তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে এনে সুষ্ঠু রাজনীতি করতে দিতে হবে। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে নিঃশর্তভাবে মুক্তি দিতে হবে।

জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজক কমিটির সভাপতি জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক মন্ত্রী আসাদুল হাবিব দুলুর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন,ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপি’র আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সালাম।ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি’র সংগ্রামী সদস্য সচিব,জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আয়োজন কমিটি সদস্য সচিব ও জাতীয় ফুটবল দলের আমিনুল হক ও ঢাকা উত্তরের মেয়র প্রার্থী ও নির্বাহী কমিটির সদস্য ইঞ্জিনিয়ার ইশরাক হোসেন।

বিএনপির রংপুর বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও সাবেক মন্ত্রী আসাদুল হাবিব দুলু বলেন, আমাদের এই আয়োজনে কুচক্রী মহল বিভিন্নভাবে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে আসছে। যাতে আয়োজন সফল না হয় সেজন্য বিভিন্নভাবে হুমকি ধমকি দেওয়া হয়েছে। আমরা সকল বাধা প্রতিহত করে আজ এই আয়োজন করেছি। ঠিক এমনি ভাবে আমরা সকল ষড়যন্ত্র প্রতিহত করে দেশনেত্রীকে মুক্ত করে ছাড়বো। দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত করবোই। আজকের খেলার মাধ্যমে বিএনপি’র একটি পুর্নমিলনী হয়েছে এবং নেতাকর্মিদেরকে উজ্জিবীত করতে এই মিলন মেলা তথা সরকারকে হটিয়ে নির্দলীয় তত্বাবোধক সরকার প্রতিষ্ঠাতা করে নির্বাচনে ক্ষমতায় আসতে এই উদ্দোগ।

এর আগে গত ১২ মে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষে জিয়া স্মৃতি ফুটবল টুর্নামেন্টের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। খেলায় রংপুর বিভাগের বিভিন্ন জেলার দল অংশ নেন। ফাইনালে স্বাগতিক লালমনিরহাট বিএনপি একাদশ ২ শূন্য গোলে রংপুর মহানগর বিএনপিকে পড়াজিত করে তৃতীয় বারের মত চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌড়ব অর্জন করেন। খেলা শেষে সন্ধায় প্রধান অতিথি বিশেষ অতিথি বিজয়ী ও রানার্সআপ দলের মাঝে ট্রফি বিতরন করেন।

এদিকে ফাইনাল খেলা উপলক্ষে লালমনিরহাটের বড়বাড়ি শহীদ আবুল কাশেম মহাবিদ্যালয়ে জমকালো আয়োজনে সাজানো হয় পুরো কলেজ মাঠ। খেলার শুরুতে স্কুল কলেজের শিক্ষার্থীদের মাদক, যৌতুক ও সন্ত্রাস বিরোধী শপথ পাঠ করানো হয়। পরে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের অংশগ্রহণে ডিসপ্লে প্রদর্শন করা হয়। পরে জাতীয় সংগীত ও দলীয় সংগীত পরিবেশন করে খেলার আনুষ্ঠানিক শুরু করা হয়।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন,রংপুর জেলা বিএনপি’র আহবায়ক সাইফুল ইসলাম, রংপুর মহানগর বিএনপি’র আহবায়ক সামসুজ্জামান সামু, লালমনিরহাট জেলা বিএনপি’র সম্পাদক হাফিজুর রহমান বাবলা, সদর বিএনপি’র আহবায়ক একেএম মমিনুল হক, লালমনিরহাট-২ আসনের বিএনপির সংসদ প্রার্থী রোকনুজ্জামান বাবুল সহ রংপুর বিভাগের বিভিন্ন জেলার বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

নিউজবিজয়/এফএইচএ