ঢাকা ০৮:৪৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৫ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

টিসিবি পণ্যের পরিমাণ বাড়ছে না : বাণিজ্যমন্ত্রী

দেশব্যাপী এক কোটি ফ্যামিলি কার্ডধারী নিম্ন আয়ের পরিবারের মধ্যে ভর্তুকি মূল্যে জানুয়ারি মাসের পণ্য বিক্রয় কার্যক্রম শুরু করেছে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। আপাতত জনপ্রতি এ পণ্যের পরিমাণ বাড়ছে না বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

আজ মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) রাজধানীর আগারগাঁওয়ের ২৮ নম্বর ওয়ার্ডে এ কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করে তিনি এ কথা জানান।

এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষ ও টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান।

মন্ত্রী বলেন, গত এক বছরে এক কোটি মানুষকে টিসিবির পণ্য বিতরণে প্রায় ৫ হাজার ২০০ কোটি টাকা সরকারের ভর্তুকি দিতে হয়েছে। ৪২০ টাকা প্যাকেজের পণ্য দেওয়া হয়। চাইলেই পণ্যের পরিমাণ বাড়িয়ে দেওয়া সম্ভব হয় না। বিষয়টি আমাদের বিবেচনায় রয়েছে। আপাতত পণ্যের পরিমাণ বাড়ানো হচ্ছে না।

তিনি বলেন, কিছু পরিবারে দুই থেকে তিনটি ফ্যামিলি কার্ড করা হয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে। এসব কার্ড ডিজিটালাইজ করা হচ্ছে। সেটি হলে আর এক পরিবারে একাধিক কার্ড থাকবে না। আপাতত প্রতি মাসে একবার টিসিবির তেল, চিনি ও ডাল তুলে দেওয়া হবে। এ কার্যক্রম আপাতত নিয়মিত অব্যাহত থাকবে। গরিব মানুষের যাতে কষ্ট না হয় সেটি বিবেচনা করে এই কার্যক্রম নিয়মিত চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এদিন দেখা গেছে, টিসিবি থেকে দুই লিটার তেল, ২ কেজি মসুর ডাল ও এক কেজি চিনি মিলিয়ে প্যাকেজ তৈরি করা হয়েছে। প্রতিটি প্যাকেজের মূল্য ৪২০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

এসব পণ্যের জন্য মঙ্গলবার সকাল ৯টা থেকে পার্শ্ববর্তী এলাকার বিভিন্ন বয়সী মানুষকে আগারগাঁওয়ে দুই থেকে তিন ঘণ্টা পর্যন্ত অপেক্ষা করতে দেখা যায়। চলতি বছরের পণ্য বিতরণের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাণিজ্যমন্ত্রীর উপস্থিত হতে দেরি হওয়ায় লাইনে তাদের দীর্ঘসময় সময় অপেক্ষা করতে হয়। এসময় লাইনে দাঁড়ানো ৮০ বছরের বেশি বয়সী কয়েক বৃদ্ধ অসুস্থ হয়ে পড়েন। ছোট শিশু কোলে নিয়েও অনেক নারীকে দীর্ঘসময় লাইনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে দেখা যায়।

পরে বাণিজ্যমন্ত্রী পণ্য বিতরণের উদ্বোধন করার পর লাইনে অপেক্ষারত কার্ডধারীদের মাঝে পণ্য বিতরণ শুরু হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষ ও টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন

Up to BDT 650 benefits on New Connection

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy24

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।

Nagad-Fifa-WorldCup

ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা ৫ হাজার ছাড়াল

টিসিবি পণ্যের পরিমাণ বাড়ছে না : বাণিজ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত সময়: ০২:৩৬:০২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১০ জানুয়ারী ২০২৩

দেশব্যাপী এক কোটি ফ্যামিলি কার্ডধারী নিম্ন আয়ের পরিবারের মধ্যে ভর্তুকি মূল্যে জানুয়ারি মাসের পণ্য বিক্রয় কার্যক্রম শুরু করেছে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। আপাতত জনপ্রতি এ পণ্যের পরিমাণ বাড়ছে না বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

আজ মঙ্গলবার (১০ জানুয়ারি) রাজধানীর আগারগাঁওয়ের ২৮ নম্বর ওয়ার্ডে এ কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করে তিনি এ কথা জানান।

এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষ ও টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান।

মন্ত্রী বলেন, গত এক বছরে এক কোটি মানুষকে টিসিবির পণ্য বিতরণে প্রায় ৫ হাজার ২০০ কোটি টাকা সরকারের ভর্তুকি দিতে হয়েছে। ৪২০ টাকা প্যাকেজের পণ্য দেওয়া হয়। চাইলেই পণ্যের পরিমাণ বাড়িয়ে দেওয়া সম্ভব হয় না। বিষয়টি আমাদের বিবেচনায় রয়েছে। আপাতত পণ্যের পরিমাণ বাড়ানো হচ্ছে না।

তিনি বলেন, কিছু পরিবারে দুই থেকে তিনটি ফ্যামিলি কার্ড করা হয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে। এসব কার্ড ডিজিটালাইজ করা হচ্ছে। সেটি হলে আর এক পরিবারে একাধিক কার্ড থাকবে না। আপাতত প্রতি মাসে একবার টিসিবির তেল, চিনি ও ডাল তুলে দেওয়া হবে। এ কার্যক্রম আপাতত নিয়মিত অব্যাহত থাকবে। গরিব মানুষের যাতে কষ্ট না হয় সেটি বিবেচনা করে এই কার্যক্রম নিয়মিত চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

এদিন দেখা গেছে, টিসিবি থেকে দুই লিটার তেল, ২ কেজি মসুর ডাল ও এক কেজি চিনি মিলিয়ে প্যাকেজ তৈরি করা হয়েছে। প্রতিটি প্যাকেজের মূল্য ৪২০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

এসব পণ্যের জন্য মঙ্গলবার সকাল ৯টা থেকে পার্শ্ববর্তী এলাকার বিভিন্ন বয়সী মানুষকে আগারগাঁওয়ে দুই থেকে তিন ঘণ্টা পর্যন্ত অপেক্ষা করতে দেখা যায়। চলতি বছরের পণ্য বিতরণের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাণিজ্যমন্ত্রীর উপস্থিত হতে দেরি হওয়ায় লাইনে তাদের দীর্ঘসময় সময় অপেক্ষা করতে হয়। এসময় লাইনে দাঁড়ানো ৮০ বছরের বেশি বয়সী কয়েক বৃদ্ধ অসুস্থ হয়ে পড়েন। ছোট শিশু কোলে নিয়েও অনেক নারীকে দীর্ঘসময় লাইনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে দেখা যায়।

পরে বাণিজ্যমন্ত্রী পণ্য বিতরণের উদ্বোধন করার পর লাইনে অপেক্ষারত কার্ডধারীদের মাঝে পণ্য বিতরণ শুরু হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাণিজ্য সচিব তপন কান্তি ঘোষ ও টিসিবির চেয়ারম্যান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. আরিফুল হাসান।

নিউজবিজয়২৪/এফএইচএন