পাথরের কফিনে মহিলার রহস্যময় মমি উদ্ধার!

বিজয় ডেস্ক: মিশরের লুক্সর শহরে উদ্ধার হল তিন হাজার বছরেরও বেশি সময় আগেকার এক মহিলার রহস্যময় মমি। মমিটি পাথরের কফিন বা সারকোফ্যাগাসের মধ্যে ছিল। এ মাসে এই নিয়ে দু’টি সারকোফ্যাগাস উদ্ধার হলো।

আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ‘দ্য গার্ডিয়ান’-এ প্রকাশিত এক প্রতিবেদন থেকে জানা যাচ্ছে, মিশরের রাজা ও রানিদের কবরক্ষেত্র থেকে ওই কফিন দু’টি উদ্ধার করা হয়েছে। দু’টি কফিন এক সময়ের নয়। একটি মোটামুটি দেড় হাজার খ্রিস্টপূর্বাব্দের। অন্যটি তেরোশো খ্রিস্ট পূর্বাব্দের। দু’টি কফিনেই মমি রয়েছে বলে জানিয়েছেন মিশরের মিনিস্ট্রি অফ অ্যান্টিকুইটি-র তরফ থেকে খালেদ আল আনানি।

এ ছাড়াও কফিন থেকে এক হাজার মূর্তি পাওয়া গিয়েছে। উদ্ধার হওয়া মহিলার মমিটির নাম সম্ভবত থুয়া, তাও জানাচ্ছেন গবেষকরা। তবে ওই নামই ছিল কি না, তা জানতে কফিনের গায়ে লেখা লিপি আরও ভাল করে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Right Menu Icon