বিড়াল পোষা জায়েজ?

প্রশ্ন: অনেকের ঘরেই বিড়াল দেখা যায়। কেউ কেউ শখের বসেই বিড়াল পোষে। বিড়াল পোষা কি জায়েজ ও শরিয়তসম্মত? জানতে চাই।

উত্তর: বিড়াল পোষা জায়েজ। আবু হুরাইরা (রা.) থেকে বর্ণিত হাদিস শরিফে রাসুল (সা.) বলেন, ‘জনৈক মহিলাকে একটি বিড়ালের কারণে আজাব দেওয়া হয়। সে বিড়ালটি বন্দি করে রাখে, এ অবস্থায় সেটি মারা যায়। সে এটি বন্দি করে রেখে পানাহার করায়নি এবং ছেড়েও দেয়নি, যাতে বিড়ালটি জমিনের পোকা-মাকড় খেতে পারে। (বুখারি, হাদিস নং: ৩৪৮২)

এ হাদিসের ব্যাখ্যায় প্রখ্যাত হাদিসবিশারদ হাফেজ ইবনে হাজার (রহ.) বলেন, কুরতুবি (রহ.) বলেছেন, এ হাদিসের মাধ্যমে বিড়াল লালন-পালন করা ও বিড়ালকে বেধে রাখা জায়েজ বলে প্রমাণিত হয়। তবে বেধে রাখার ক্ষেত্রে পানাহার করানোর ব্যাপারটি লক্ষ্য করা জরুরি। (ফাতহুল বারি ৬/৪১২)

এছাড়া আরো কিছু হাদিস রয়েছে, যেগুলো থেকে বিড়াল পালা জায়েজ বলে প্রমাণিত হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Right Menu Icon