ঢাকা ০৮:৫১ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৩, ১৫ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহীতে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট

১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহী বিভাগের ৮ জেলায় পরিবহন ধর্মঘটের ঘোষণা দিয়েছে রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদ। ৩০ নভেম্বরের মধ্যে সড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধসহ ১১ দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে এই কর্মসূচির ঘোষণা দেয়া হয়।

শনিবার বিকেলে নাটোর শহরের কানাইখালী এলাকায় আরপি কমিউনিটি সেন্টারে বিভাগীয় মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের যৌথ সভা থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

এতে সভাপতিত্ব করেন রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদ সভাপতি সাফকাত মঞ্জুর বিপ্লব। জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে আমন্ত্রিত ছিলেন।

সভায় বক্তব্য দেন, পাবনা মোটর মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মমিনুল হক মোমিন, সিরাজগঞ্জ বাস কোচ মালিক সমিতির সভাপতি আতিকুল ইসলাম আতিক, চাপাঁইনবাবগঞ্জ মালিক সমিতির সভাপতি আমিনুল ইসলাম সেন্টু, নাটোর জেলা পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি কামরুল ইসলাম, বাস-মিনিবাস মালিক সমিতির সভাপতি লক্ষ্মণ পোদ্দার, সাধারণ সম্পাদক মজিবর রহমান প্রমুখবগুড়া বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী বিভাগের আট জেলার মালিক-শ্রমিক নেতৃবৃন্দ।

সভা শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের জানানো হয়, সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ সংশোধনসহ হাইকোর্টের নির্দেশানুযায়ী মহাসড়ক ও আঞ্চলিক সড়কে থ্রি-হুইলার, সিএনজি ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চলাচল বন্ধ, জ্বালানি তেলসহ যন্ত্রাংশের মূল্য হ্রাস করাসহ ১১ দফা বাস্তবায়নে সরকারের নিকট দাবি জানানো হয়। ৩০ নভেম্বরের মধ্যে দাবি বাস্তবায়ন করা না হলে আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য রাজশাহী বিভাগের ৮ জেলায় পরিবরহন ধর্মঘট পালন করা হবে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে শনিবারের যৌথসভার লিখিত সিদ্ধান্ত পাঠ করেন রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদের সভাপতি সাফকাত মঞ্জুর বিপ্লব। আট জেলার পরিবহন নেতৃবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

সকল সংবাদ পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুন…

নিউজবিজয় ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

আপনার সোস্যাল মিডিয়ায় শেয়ার দিন

NewsBijoy24

নিউজবিজয়২৪.কম একটি অনলাইন নিউজ পোর্টাল। বস্তুনিষ্ঠ ও তথ্যভিত্তিক সংবাদ প্রকাশের প্রতিশ্রুতি নিয়ে ২০১৫ সালের ডিসেম্বর মাসে এটি প্রতিষ্ঠিত হয়। উৎসর্গ করলাম আমার বাবার নামে, যাঁর স্নেহ-সান্নিধ্যের পরশ পরিবারের সুখ-দু:খ,হাসি-কান্না,ব্যথা-বেদনার মাঝেও আপার শান্তিতে পরিবার তথা সমাজে মাথা উচুঁ করে নিজের অস্তিত্বকে মেলে ধরতে পেরেছি।
জনপ্রিয় সংবাদ
google.com, pub-9120502827902997, DIRECT, f08c47fec0942fa0

১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহীতে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট

প্রকাশিত সময়: ১০:৪১:৪৩ অপরাহ্ন, শনিবার, ২৬ নভেম্বর ২০২২

১ ডিসেম্বর থেকে রাজশাহী বিভাগের ৮ জেলায় পরিবহন ধর্মঘটের ঘোষণা দিয়েছে রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদ। ৩০ নভেম্বরের মধ্যে সড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধসহ ১১ দফা দাবি বাস্তবায়নের লক্ষ্যে এই কর্মসূচির ঘোষণা দেয়া হয়।

শনিবার বিকেলে নাটোর শহরের কানাইখালী এলাকায় আরপি কমিউনিটি সেন্টারে বিভাগীয় মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের যৌথ সভা থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

এতে সভাপতিত্ব করেন রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদ সভাপতি সাফকাত মঞ্জুর বিপ্লব। জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শরিফুল ইসলাম রমজান সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে আমন্ত্রিত ছিলেন।

সভায় বক্তব্য দেন, পাবনা মোটর মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মমিনুল হক মোমিন, সিরাজগঞ্জ বাস কোচ মালিক সমিতির সভাপতি আতিকুল ইসলাম আতিক, চাপাঁইনবাবগঞ্জ মালিক সমিতির সভাপতি আমিনুল ইসলাম সেন্টু, নাটোর জেলা পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি কামরুল ইসলাম, বাস-মিনিবাস মালিক সমিতির সভাপতি লক্ষ্মণ পোদ্দার, সাধারণ সম্পাদক মজিবর রহমান প্রমুখবগুড়া বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক আমিনুল ইসলাম। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন রাজশাহী বিভাগের আট জেলার মালিক-শ্রমিক নেতৃবৃন্দ।

সভা শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের জানানো হয়, সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ সংশোধনসহ হাইকোর্টের নির্দেশানুযায়ী মহাসড়ক ও আঞ্চলিক সড়কে থ্রি-হুইলার, সিএনজি ও ব্যাটারিচালিত অটোরিকশা চলাচল বন্ধ, জ্বালানি তেলসহ যন্ত্রাংশের মূল্য হ্রাস করাসহ ১১ দফা বাস্তবায়নে সরকারের নিকট দাবি জানানো হয়। ৩০ নভেম্বরের মধ্যে দাবি বাস্তবায়ন করা না হলে আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য রাজশাহী বিভাগের ৮ জেলায় পরিবরহন ধর্মঘট পালন করা হবে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে শনিবারের যৌথসভার লিখিত সিদ্ধান্ত পাঠ করেন রাজশাহী বিভাগীয় সড়ক পরিবহন মালিক শ্রমিক পরিষদের সভাপতি সাফকাত মঞ্জুর বিপ্লব। আট জেলার পরিবহন নেতৃবৃন্দ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।